কয়েকদিন আগেই প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে বাংলা সফরের আমন্ত্রণ জানিয়েছে বঙ্গ বিজেপি।  এপ্রিলে বাংলা বিশ্ব বেঙ্গল বাণিজ্য সম্মেলনের আয়োজন করছে।

কয়েকদিন আগেই প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে বাংলা সফরের আমন্ত্রণ জানিয়েছে বঙ্গ বিজেপি। এপ্রিলে বাংলা বিশ্ব বেঙ্গল বাণিজ্য সম্মেলনের আয়োজন করছে।

দেশে পালিত হচ্ছে স্বাধীনতার অমৃত উৎসব

দেশে পালিত হচ্ছে স্বাধীনতার অমৃত উৎসব। কেন্দ্রের তরফে একাধিক পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে। সেখানে দাঁড়িয়ে বিজেপি চায় নেতাজির জন্মদিনে প্রধানমন্ত্রী মোদি কলকাতায় আসুক। আর সেই লক্ষ্যে আবারও আমন্ত্রণ জানানোর তাগিদ শুরু হয়েছে। এমনটাই খবর বিজেপি সূত্রে। এর আগে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠকে সুকান্ত মজুমদার স্বাধীনতার অমৃত মহোৎসব উপলক্ষে কেন্দ্রের কাছে বাংলায় একটি বই প্রকাশের দাবি জানান। কলকাতার প্রাণকেন্দ্রে প্রধানমন্ত্রীর উদ্বোধনের কথাও প্রধানমন্ত্রীকে জানান তারা।

ভোটের আগে কলকাতায় সময় কাটান প্রধানমন্ত্রী

ভোটের আগে কলকাতায় সময় কাটান প্রধানমন্ত্রী

এ বছর বাংলায় বিধানসভা নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়েছে। আর সেই নির্বাচনের দিকে তাকিয়ে নেতাজির জন্মবার্ষিকীতে কলকাতায় আসেন প্রধানমন্ত্রী মোদী। রাজনৈতিক মহলের মতে। তিনি কলকাতায় নেতাজির বাড়িতে গিয়েছিলেন। এরপর ভিক্টোরিয়ায় একটি অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। প্রধানমন্ত্রী মোদি এবং মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় একসঙ্গে এতে যোগ দেন। সব দিক বিবেচনা করে সুকান্ত মজুমদার চান প্রধানমন্ত্রী আগামী ২৩ জানুয়ারি কলকাতায় থাকবেন।

ভোটের আগে বুস্টার ডোজ মোদি

ভোটের আগে বুস্টার ডোজ মোদি

কলকাতা বিধানসভা নির্বাচনের পর থেকে সবকটি ভোট হারিয়েছে বিজেপি। কলকাতা পুরসভা নির্বাচনে বঙ্গীয় বিজেপি হেরেছে। সেখানে দাঁড়িয়ে রাজ্যের একাধিক পুরসভায় ভোট হতে চলেছে। একের পর এক ভোটে পরাজয় কর্মীদের মনোবলে আঘাত করেছে। আর বঙ্গীয় বিজেপি কি ফের নির্বাচনের আগে মোদির জনপ্রিয়তাকে হাতিয়ার হিসেবে ব্যবহার করে ঘুরে দাঁড়ানোর চেষ্টা করছে? রাজনৈতিক মহলের একাংশ বিষয়টিকে উড়িয়ে দিতে সক্ষম।

আসছেন নাদ্দা-শাহ

আসছেন নাদ্দা-শাহ

শোনা যাচ্ছে, বাংলায় আসতে চলেছেন অমিত শাহ। এমনকি বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি জেপি নাদ্দারও কলকাতায় যাওয়ার কথা রয়েছে। সাধারণ নির্বাচনের আগে তাদের কলকাতায় আসার কথা রয়েছে। বাংলার বিজেপি কার্যত বিদ্রোহের মুখে। এই পরিস্থিতিতে বিদ্রোহ সামাল দেওয়াই তাদের জন্য বড় চ্যালেঞ্জ। ইতোমধ্যে জেলা কমিটিতে বেশ কিছু রদবদল হয়েছে। এক্ষেত্রে তাদের সফর রাজনৈতিকভাবে তাৎপর্যপূর্ণ। যদিও বিজেপি এই বিষয়ে স্পষ্ট করে কিছু জানায়নি।

Leave a Comment