Google Oneindia Bengali News

কংগ্রেস প্রার্থীকে অনুসরণ করছেন নির্দল প্রার্থীরা! কলকাতায়, কলকাতা পৌর নির্বাচনের 81 নম্বর ওয়ার্ডে কংগ্রেস প্রার্থীর পরে একজন স্বতন্ত্র প্রার্থী।

কলকাতা

oi-সঞ্জয় ঘোষাল

গুগল ওয়ানইন্ডিয়া বাংলা খবর

কলকাতা ভোটের প্রস্তুতি নিচ্ছে কংগ্রেস। বিনা লড়াইয়ে তৃণমূলকে মদিনাও দিচ্ছে না কংগ্রেস। ওয়ার্ডে ওয়ার্ডে চোখে-মুখে লড়াই চলছে। কলকাতা পৌরসভার 61 নম্বর ওয়ার্ডে এমন লড়াইয়ের প্রতিফলন দেখা দিয়েছে। এই ওয়ার্ডে কংগ্রেস প্রার্থীকে ছায়ার মতো অনুসরণ করছেন নির্দল প্রার্থীরা। আর স্বতন্ত্র প্রার্থী তৃণমূলের হয়ে কাজ করছেন বলে অভিযোগ কংগ্রেস প্রার্থীর।

কংগ্রেস প্রার্থীকে অনুসরণ করছেন নির্দল প্রার্থীরা!  কলকাতা প্রাক ভোটে অভিনব ঘটনা নিয়ে উত্তেজনা

একেবারে অভিনব অভিযোগ উঠল কলকাতা পৌরসভা নির্বাচনে। একজন প্রার্থীর পেছনে আরেক প্রার্থী। এই অভিযোগে উত্তাল হয়ে ওঠে বুথ চত্বর। কংগ্রেস প্রার্থীর অভিযোগ এবং প্রকৃত ঘটনা ক্যামেরায় দেখা গেছে 71 নম্বর ওয়ার্ডের একটি বুথে। প্রার্থীকে অনুসরণ করার জন্য কলকাতা নির্বাচনে একটি নতুন নজির তৈরি হয়েছে।

ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে, ৭১ নম্বর ওয়ার্ডের কংগ্রেস প্রার্থী বুথে ঢুকলেন। সঙ্গে সঙ্গে তাকে অনুসরণ করেন আরেক প্রার্থী। তিনি স্বতন্ত্র প্রার্থী। আবার কংগ্রেস প্রার্থী বেরিয়ে আসেন এবং তিনিও বুথ থেকে বেরিয়ে আসেন। এমনিতেই স্বতন্ত্র প্রার্থী যা করছেন, তা করছেন কংগ্রেস প্রার্থী। তিনি যেখানেই যাচ্ছেন, কংগ্রেস প্রার্থীও তাঁকে অনুসরণ করছেন।

স্বতন্ত্র প্রার্থীর বিরুদ্ধে অভিযোগের তীর নিক্ষেপ করে, কংগ্রেস প্রার্থী তানিয়া পাল বলেছিলেন যে স্বতন্ত্র প্রার্থীকে তার পিছনে রাখা হয়েছে। আর এই কাজ তৃণমূলের। তৃণমূল প্রার্থী জেসমিন বিশ্বাসের পক্ষে কাজ করছেন বলে অভিযোগ কংগ্রেস প্রার্থীর। স্বতন্ত্র প্রার্থীরা তৃণমূলের হয়ে কাজ করছেন। তৃণমূল তাদের নখদর্পণে সব করছে। কংগ্রেসের ভয়ে তৃণমূল এসব করছে।

45 নম্বর ওয়ার্ডে কংগ্রেস প্রার্থী সন্তোষ পাঠক বাইরের ভোটারদের হাতে ধরা পড়েন।45 নম্বর ওয়ার্ডে কংগ্রেস প্রার্থী সন্তোষ পাঠক বাইরের ভোটারদের হাতে ধরা পড়েন।

স্বতন্ত্র প্রার্থী অভিযোগ অস্বীকার করে বলেছেন, অভিযোগ ভিত্তিহীন। আমি একজন প্রার্থী। আমারও ভোট দেওয়ার অধিকার আছে। আমি আমার মত ভোট দিচ্ছি। আমি কেন তৃণমূলের জন্য কাজ করতে যাচ্ছি। ভোটার লাইনে গিয়ে ভোটারদের প্রভাবিত করছেন কংগ্রেস প্রার্থীরা। ঠেকাতে কংগ্রেস প্রার্থীর পিছু নেন তিনি।

কংগ্রেস প্রার্থীর আবার অভিযোগ, শুধু ওই প্রার্থীই নয়, দলে দলে এখানে এসেছেন। তিনি যা করছেন তা অনুসরণ করছেন। এই ঘটনায় বুথের সামনে কংগ্রেস প্রার্থী ও নির্দল প্রার্থীর মধ্যে বাকবিতণ্ডা হয়। একে অপরের বিরুদ্ধে পাল্টাপাল্টি অভিযোগ করতে থাকে। ভোট ছাড়াও বুথের সামনে নতুন করে অভিযোগ ওঠে।

ইংরেজি সারাংশ

কলকাতা পৌর নির্বাচনের 81 নম্বর ওয়ার্ডে কংগ্রেস প্রার্থীর পরে স্বতন্ত্র প্রার্থী

Leave a Comment